বৃহস্পতিবার, ২১ নভেম্বর ২০১৯, ০৩:৩৭ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম ::
বৈধ কাগজপত্র নিয়ে প্রত্যেককে গাড়ি চালাতে হবে-ডিআইজি নিবাস চন্দ্র মাঝি ত্রিশালে অবৈধভাবে মজুদকৃত ৭হাজার কেজি লবণ জব্দ করেছে ডিবি পুলিশ,আটক ৪ খালিয়াজুরির মেন্দীপুর ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে নানা অনিয়মের অভিযোগ শ্রীমঙ্গল গলায় ফাঁস দিল যুবক পূর্বধলায় পানিতে ডুবে দুই শিশু শিক্ষার্থীর মৃত্যু রাঙ্গামাটিতে ইউপি সদস্য ও চেয়ারম্যান দের নিয়ে প্রশাসন অবহিত করন কোর্স রাঙ্গামাটির রাজস্থলীতে ঠিকাদার ও নির্মাণ শ্রমিককে বেধরক মারধর ও কুপিয়েছে সন্ত্রাসীরা শ্রীমঙ্গল প্রেসক্লাবের ব্যবস্থাপনায় সহস্রধিক মানুষকে দিনব্যাপী চিকিৎসা সেবা ও ওষুধ বিতরণ শ্রীবরদীতে বিনামূল্যে সার-বীজ বিতরণ নেত্রকোনায় এতিমদের মাঝে জিয়াউর রহমান ফাউন্ডেশনের শীত বস্ত্র বিতরণ

স্কুল ব্যাংকিংয়ের আওতায় এসেছে ২০ লাখ শিক্ষার্থী

  • আপডেট টাইম : রবিবার, ১৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৯, ৩.৫৮ পিএম
  • ২৮ বার পড়া হয়েছে

স্কুল ব্যাংকিং কার্যক্রমে শিক্ষার্থীদের আগ্রহ বাড়ছে। ফলে ব্যাংকগুলোতে এই কার্যক্রমের আওতায় খোলা হিসাবের পাশাপাশি আমানতের পরিমাণও বাড়ছে। এখন পর্যন্ত স্কুল ব্যাংকিং কার্যক্রমে বেসরকারি বাণিজ্যিক ব্যাংকগুলোই এগিয়ে রয়েছে। বাংলাদেশ ব্যাংকের হালনাগাদ প্রতিবেদন অনুযায়ী, স্কুলের প্রায় ২০ লাখ ছেলেমেয়ের এখন ব্যাংক হিসাব রয়েছে। তাদের জমানো অর্থের পরিমাণ ১ হাজার ৪৯৪ কোটি টাকা।

বাংলাদেশ ব্যাংকের হালনাগাদ তথ্যানুযায়ী চলতি বছরের জুন শেষে স্কুল শিক্ষার্থীদের ব্যাংক হিসাবের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৯ লাখ ৯৬ হাজার ৩০টি। গত এক বছরে হিসাব সংখ্যা বৃদ্ধি পেয়েছে ৪ লাখ ৫৬ হাজার ১৯৪টি। অর্থাৎ এক বছরে হিসাব সংখ্যার প্রবৃদ্ধি ২৯ দশমিক ৬২ শতাংশ। এই সময়ে স্কুল শিক্ষার্থীদের জমানো আমানত বেড়েছে ৭৪ কোটি টাকা।

বাংলাদেশ ব্যাংকের তথ্য মতে, স্কুল শিক্ষার্থীদের হিসাব সংখ্যা ও টাকা জমার স্থিতির দিক থেকে বেসরকারি ব্যাংকের অবদান সবচেয়ে বেশি। বেসরকারি ব্যাংকগুলো মোট ১৩ লাখ ৮৭ হাজার ৭২৫টি ব্যাংক হিসাব খুলেছে, যা মোট স্কুল ব্যাংকিং হিসাবের ৬৯ দশমিক ৫২ শতাংশ।

কেন্দ্রীয় ব্যাংকের তথ্যানুযায়ী, স্কুল ব্যাংকিংয়ের মোট হিসাবের ৩৮ দশমিক ৬৩ শতাংশ খোলা হয়েছে গ্রামাঞ্চলে। ৬১.৩৭ শতাংশ খোলা হয়েছে শহরাঞ্চলে। শিক্ষার্থীরা সবচেয়ে বেশি হিসাব খুলেছে ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেডে। এই ব্যাংকে ৩ লাখ ৬৯ হাজার ৬২৩ শিক্ষার্থী হিসাব খুলেছে, যা মোট হিসাবের ১৮ দশমিক ৫২ শতাংশ। অপরদিকে স্কুল শিক্ষার্থীরা সবচেয়ে বেশি টাকা জমা রেখেছে ডাচ্-বাংলা ব্যাংকে। এখানে তারা আমানত রেখেছে ৪৬৫ দশমিক ৮৮ কোটি টাকা, যা মোট আমানতের ৩১ দশমিক ১৭ শতাংশ।

ছাত্রছাত্রীদের জন্য স্কুল ব্যাংকিং সেবাকে জনপ্রিয় করতে কোনো কোনো ব্যাংক আলাদা কাউন্টার বা ডেস্ক খুলেছে। জানা গেছে, স্কুল শিক্ষার্থীদের ব্যাংকিং সুবিধা ও তথ্যপ্রযুক্তিগত সেবার সঙ্গে পরিচিত করানোর লক্ষ্যে বাংলাদেশ ব্যাংক ২০১০ সালের ২ নভেম্বর স্কুল ব্যাংকিং বিষয়ে একটি পরিপত্র জারি করে। এরপর থেকেই স্কুল পড়ুয়া কোমলমতি শিক্ষার্থীদের সঞ্চয়ে উদ্বুদ্ধ করতে দেশের বাণিজ্যিক ব্যাংকগুলো আকর্ষণীয় মুনাফার নানা স্কিম চালু করে। ২০১০ সালে ‘স্কুল ব্যাংকিং’ কার্যক্রম শুরু হলেও শিক্ষার্থীরা টাকা জমা রাখার সুযোগ পায় ২০১১ সাল থেকে। প্রথম বছরে স্কুল ব্যাংকিং হিসাব খোলা হয় ২৯ হাজার ৮০টি।

Print Friendly, PDF & Email

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

নামাজের সময় সূচি

  • ফজর
  • যোহর
  • আছর
  • মাগরিব
  • এশা
  • সূর্যোদয়
  • ৫:০২ পূর্বাহ্ণ
  • ১১:৪৭ পূর্বাহ্ণ
  • ৩:৩৬ অপরাহ্ণ
  • ৫:১৫ অপরাহ্ণ
  • ৬:৩১ অপরাহ্ণ
  • ৬:১৬ পূর্বাহ্ণ

themesbazarpurbakantho411245
© All rights reserved © 2019 Purbakantho
Design & Developed BY Purbakantho.Com
error: Content is protected !!