বৃহস্পতিবার, ২৮ জানুয়ারী ২০২১, ০৭:২৭ পূর্বাহ্ন বাংলা বাংলা English English
ঘোষনা :
৥ সমসাময়িক বিষয় নিয়ে আপনিও চাইলে পূর্বকন্ঠ অনলাইন প্রকাশনায় লিখতে পারেন কলাম অথবা মতামত ৥ আপনার গঠনমূলক লেখা ছাপা হবে যথাযথ গুরুত্ব দিয়ে ৥ অবশ্যই সম্পাদনা সহকারে ৥ প্রয়োজনে : ০১৭১৩৫৭৩৫০২ ৥
কমলগঞ্জে যুবতীর স্বেচ্ছায় হিন্দু থেকে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ
/ ২৯০৩ বার পড়া হয়েছে।
আপডেট : সোমবার, ২০ এপ্রিল, ২০২০, ৮:২৯ অপরাহ্ন

ইসলাম শান্তির ধর্ম। আর এই ধর্মে রয়েছে মানুষের জন্য কল্যাণকর জীবনব্যবস্থা। এমন আত্ম-উপলব্ধি থেকে মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার আদমপুর ইউনিয়নের উত্তরভাগ গ্রামের এক যুবতী হিন্দু ধর্ম ত্যাগ করে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছেন।

মৌলভীবাজার চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে গিয়ে এফিডেভিট করে প্রিংকা কর বর্তমানে সুমী বেগম নামের ওই যুবতী সনাতন ধর্ম ত্যাগ করে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছেন। খবরটি জানাজানি হলে আদমপুরে ব্যাপক সাড়া দেখা যায়। রোববার এশার নামাজের পর তার জন্য নইনারপার জামে মসজিদে দোয়া করেন খতিব জয়নাল আবেদীন।

সুত্রে জানা যায়, উপজেলার ৭নং আদমপুর ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডের শব্দকর পাড়ার প্রিংকা কর (১৯) ইসলাম ধর্মের প্রতি আকৃষ্ট হয়ে আদালতে গিয়ে নাম পরিবর্তন করে সুমী বেগম নাম রেখে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেন।

সুমী বেগম ইসলাম ধর্ম গ্রহণ শেষে জানান, শৈশব থেকেই আমি ইসলাম ধর্মের প্রতি দুর্বল ছিলাম। একপর্যায়ে শিপন আলীর প্রণয়ে আকৃষ্ট হলে তার কাছে বিষয়টি প্রকাশ করলে সে আমাকে অনুপ্রাণিত করে। দীর্ঘ সময়ে মুসলমানদের রীতিনীতি পর্যালোচনা করে আল্লাহ এবং প্রিয় নবী হযরত মোহাম্মদ (স:) প্রতি বিশ্বাস রেখে আমি হিন্দু ধর্ম ত্যাগ করে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করি। এখন আমি ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছি এবং শিপন আলীর সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হই।

স্থানীয় সমাজসেবক মতিউর রহমান জানান, মেয়েটি স্ব-ইচ্ছায় ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছে এবং একই এলাকার মুসলিম ছেলের সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়েছে৷ আমরা সবাই তাদের প্রতি আন্তরিক। তাদের যেকোনো প্রয়োজনে আমরা সর্বোক্ষণ তাদের পাশে থাকবো।

Print Friendly, PDF & Email
এ জাতীয় আরও সংবাদ
আমাদের ফেসবুক পেইজ