নেত্রকোনা ০৭:২৭ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

পূর্বধলায় বণিক সমিতির সাথে উপজেলা চেয়ারম্যান প্রার্থীর মতবিনিময়

  • আপডেট : ০৬:১৭:২৪ অপরাহ্ন, সোমবার, ২৯ এপ্রিল ২০২৪
  • ১১৯

নেত্রকোনার পূর্বধলায় বাজার বণিক সমিতির নেতৃবৃন্দের  সাথে উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান প্রার্থী আসাদুজ্জামান নয়নের মতবিনিময় অনুষ্ঠিত হয়েছে।

সোমবার (২৯ এপ্রিল) বিকালে উপজেলা সদরের পাট বাজারে এ মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় বণিক সমিতির সভাপতি ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এরশাদ হোসেন মালু’র সভাপতিত্বে সাবেক ছাত্রনেতা শহিদুল ইসলাম আঙ্গুরের সঞ্চালনায়  অন্যান্যের মাঝে বক্তব্য রাখেন, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার আইয়ুব আলী, সাবেক কমান্ডার মো. নিজাম উদ্দিন, পূর্বধলা জগৎমনি সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের অবসরপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক তরুণ কুমার রায়, উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মোতাহার হোসেন বকুল, পূর্বধলা বাজার বণিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক ও জেলা পরিষদ সদস্য মোঃ আফতাব উদ্দিন, উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের সাবেক যুগ্ম আহ্বায়ক মিজানুর রহমান মুজিবর, আওয়ামী লীগ নেতা কফিল উদ্দিন খান, পূর্বধলা সদর ইউপি চেয়ারম্যান সিদ্দিকুর রহমান বুলবুল, ব্যবসায়ী আনিসুর রহমান লাল মিয়া, বিশ্বজিৎ রায় চৌধুরী, দিলিপ পাল, আব্দুল মোমেন জুয়েল, আলমগীর বাশার সুমন প্রমুখ।

এ সময় উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও জটিয়াবর মহাবিদ্যালয়ের অধ্যক্ষ গোলাম মোস্তফা, উপজেলা আওয়ামী লীগের স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক জালাল উদ্দিন, উপ-প্রচার সম্পাদক এখলাছ উদ্দিন লাক মিয়া, বিকন সরকার, বিশকাকুনী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোঃ সাইফুল ইসলাম তালুকদারসহ আওয়ামী লীগের নেতৃবন্দ ও বণিক সমিতির ব্যবসায়ীগণ উপস্থিত ছিলেন।

উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থী আসাদুজ্জামান নয়ন তার বক্তব্যে বলেন, আমি নিজে একজন ব্যবসায়ী, নিঃসন্দেহে ব্যবসায়ীর দুঃখ কষ্ট আমি বুঝি। উপজেলা চেয়ারম্যান হলে ব্যবসায়ীরা সুষ্ঠুভাবে ব্যবসা পরিচালনা করতে পারবেন। কাউকে কোনো চাঁদা দিতে হবেনা। তাই আপনারা আমাকে ভোট দিয়ে নির্বাচিত করে সেবা করার সুযোগ দিন।

আপনার মন্তব্য লিখুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষণ করুন

প্রকাশক ও সম্পাদক সম্পর্কে-

আমি মো. শফিকুল আলম শাহীন। আমি একজন ওয়েব ডেভেলপার ও সাংবাদিক । আমি পূর্বকণ্ঠ অনলাইন প্রকাশনার সম্পাদক ও প্রকাশক। আমি জীবনের প্রতিটি ক্ষেত্রে ইতিবাচক। আমি করতে, দেখতে এবং অভিজ্ঞতা করতে পছন্দ করি এমন অনেক কিছু আছে। আমি আইটি সেক্টর নিয়ে বিভিন্ন এক্সপেরিমেন্ট করতে পছন্দ করি। যেমন ওয়েব পেজ তৈরি করা, বিভিন্ন অ্যাপ তৈরি করা, অনলাইন রেডিও স্টেশন তৈরি করা, অনলাইন সংবাদপত্র তৈরি করা ইত্যাদি।

পূর্বধলায় জাতীয় প্রাথমিক শিক্ষা সপ্তাহ পালিত

পূর্বধলায় বণিক সমিতির সাথে উপজেলা চেয়ারম্যান প্রার্থীর মতবিনিময়

আপডেট : ০৬:১৭:২৪ অপরাহ্ন, সোমবার, ২৯ এপ্রিল ২০২৪

নেত্রকোনার পূর্বধলায় বাজার বণিক সমিতির নেতৃবৃন্দের  সাথে উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান প্রার্থী আসাদুজ্জামান নয়নের মতবিনিময় অনুষ্ঠিত হয়েছে।

সোমবার (২৯ এপ্রিল) বিকালে উপজেলা সদরের পাট বাজারে এ মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় বণিক সমিতির সভাপতি ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এরশাদ হোসেন মালু’র সভাপতিত্বে সাবেক ছাত্রনেতা শহিদুল ইসলাম আঙ্গুরের সঞ্চালনায়  অন্যান্যের মাঝে বক্তব্য রাখেন, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার আইয়ুব আলী, সাবেক কমান্ডার মো. নিজাম উদ্দিন, পূর্বধলা জগৎমনি সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের অবসরপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক তরুণ কুমার রায়, উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মোতাহার হোসেন বকুল, পূর্বধলা বাজার বণিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক ও জেলা পরিষদ সদস্য মোঃ আফতাব উদ্দিন, উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের সাবেক যুগ্ম আহ্বায়ক মিজানুর রহমান মুজিবর, আওয়ামী লীগ নেতা কফিল উদ্দিন খান, পূর্বধলা সদর ইউপি চেয়ারম্যান সিদ্দিকুর রহমান বুলবুল, ব্যবসায়ী আনিসুর রহমান লাল মিয়া, বিশ্বজিৎ রায় চৌধুরী, দিলিপ পাল, আব্দুল মোমেন জুয়েল, আলমগীর বাশার সুমন প্রমুখ।

এ সময় উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও জটিয়াবর মহাবিদ্যালয়ের অধ্যক্ষ গোলাম মোস্তফা, উপজেলা আওয়ামী লীগের স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক জালাল উদ্দিন, উপ-প্রচার সম্পাদক এখলাছ উদ্দিন লাক মিয়া, বিকন সরকার, বিশকাকুনী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোঃ সাইফুল ইসলাম তালুকদারসহ আওয়ামী লীগের নেতৃবন্দ ও বণিক সমিতির ব্যবসায়ীগণ উপস্থিত ছিলেন।

উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থী আসাদুজ্জামান নয়ন তার বক্তব্যে বলেন, আমি নিজে একজন ব্যবসায়ী, নিঃসন্দেহে ব্যবসায়ীর দুঃখ কষ্ট আমি বুঝি। উপজেলা চেয়ারম্যান হলে ব্যবসায়ীরা সুষ্ঠুভাবে ব্যবসা পরিচালনা করতে পারবেন। কাউকে কোনো চাঁদা দিতে হবেনা। তাই আপনারা আমাকে ভোট দিয়ে নির্বাচিত করে সেবা করার সুযোগ দিন।