নেত্রকোনা ১১:২১ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১২ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

কালিয়াকৈরে দুই দিনেও খোঁজ মেলেনি সিহাবের

  • আপডেট : ০৮:১৬:৩৯ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৪ অক্টোবর ২০১৯
  • ১২৮৩ বার পঠিত

মোঃ মীর সোহেল মিয়া, কালিয়াকৈর (গাজীপুর) প্রতিনিধি:

গাজীপুরের কালিয়াকৈরে নদীতে গোসল করতে নামার পর থেকে দুই দিনেও খোঁজে পাওয়া যায়নি শাহরিয়ার হোসেন সিহাবকে।

রবিবার দুপুরে গোসল করতে নেমে ৮ম শ্রেনীর ওই স্কুল ছাত্র তার বন্ধুদের সামনেই ঘাটাখালি নদীতে ডুবে নিখোঁজ হয়ে যায়।মমার্ন্তিক এ ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার লতিফপুর এলাকায়।

সোমবার (১৪ অক্টোবর) বিকেল পর্যন্ত নিখোঁজ ছাত্রের সন্ধ্যান পাওয়া যায়নি বলে জানা গেছে।

নিখোঁজ হওয়া স্কুলছাত্র হলো, জামালপুর জেলার বাসিন্দা মতিউর রহমানের ছেলে শাহরিয়ার হোসেন সিহাব(১৪)। সে কালিয়াকৈর উপজেলার লতিফপুর সরকারী প্রাথমিক মডেল স্কুলের অষ্টম শ্রেণীর ছাত্র।

ফায়ার সার্ভিস ও নিখোঁজের পরিবার জানায়, শাহরিয়ার দীর্ঘদিন ধরে তার বাবা-মায়ের সঙ্গে কালিয়াকৈর উপজেলার কালিয়াকৈর এলাকার জালালউদ্দিনের বাসায় ভাড়া থেকে বসবাস করে আসছে। রোববার দুপুরে সে তার বন্ধু মেহেদী, সাব্বির, তামিম আসাদকে তাদের বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে এসে তারা কয়েকজন মিলে লতিফপুর এলাকায় ঘাটাখালি নদীতে গোসল করতে নামে। এ সময় শাহরিয়ার তার বন্ধুদের সামনেই নদীতে ডুবে নিখোঁজ হয়।

স্থানীয়রা তাকে উদ্ধারের অনেক চেষ্টা চালিয়ে ব্যর্থ হয়ে কালিয়াকৈর ফায়ার সার্ভিসে খবর দেয়। খবর পেয়ে কালিয়াকৈর ফায়ার সার্ভিস ঘটনাস্থলে গিয়ে উদ্ধার কাজ শুরু করে। এক পযার্য়ে টঙ্গী ফায়ার সার্ভিসকে খবর দিলে সেখান থেকে একদল ডুবুরি এসে কালিয়াকৈর ফায়ার সার্ভিসের সঙ্গে উদ্ধার কাজ চালায়।

রবিবার সন্ধ্যায় কালিয়াকৈর উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান সেলিম আজাদ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন এবং নিখোঁজের উদ্ধার কার্যক্রমে সার্বিক সহযোগীতার আশ্বাসদেন।

রবিবার দিন উদ্ধার কার্যক্রম চালিয়ে ব্যর্থ হয়ে পরে সন্ধ্যায় ফায়ার সার্ভিসের উদ্ধার কার্যক্রম স্থগিত করা হয়।

কালিয়াকৈর ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন কর্মকর্তা কবিরুল ইসলাম জানান, টঙ্গী ফায়ার সার্ভিস থেকে আসা একদল ডুবুরিদের সাথে নিয়ে রবিবার সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত চেষ্টা চালিয়ে ওই স্কুলছাত্রকে খোঁজে পাওয়া যায়নি। অনেক খোঁজাখোঁজির পর সন্ধ্যা ৭টার সময় উদ্ধার কার্যক্রম স্থগিত করা হয়।

আপনার মন্তব্য লিখুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষণ করুন

প্রকাশক ও সম্পাদক সম্পর্কে-

শফিকুল আলম শাহীন

আমি একজন ওয়েব ডেভেলপার ও সাংবাদিক। আমি দৈনিক ইত্তেফাক পত্রিকায় পূর্বধলা উপজেলা সংবাদদাতা হিসেবে কর্মরত । সেইসাথে পূর্বকণ্ঠ অনলাইন প্রকাশনার সম্পাদক ও প্রকাশক। আমার বর্তমান ঠিকানা স্টেশন রোড, পূর্বধলা, নেত্রকোনা। আমি জীবনের প্রতিটি ক্ষেত্রে ইতিবাচক। আমার ধর্ম ইসলাম। আমি করতে, দেখতে এবং অভিজ্ঞতা করতে পছন্দ করি এমন অনেক কিছু আছে। আমি আইটি সেক্টর নিয়ে বিভিন্ন এক্সপেরিমেন্ট করতে পছন্দ করি। যেমন ওয়েব পেজ তৈরি করা, বিভিন্ন অ্যাপ তৈরি করা, রেডিও স্টেশন তৈরি করা, অনলাইন সংবাদপত্র তৈরি করা ইত্যাদি। প্রয়োজনে: ০১৭১৩৫৭৩৫০২

কালিয়াকৈরে দুই দিনেও খোঁজ মেলেনি সিহাবের

আপডেট : ০৮:১৬:৩৯ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৪ অক্টোবর ২০১৯

মোঃ মীর সোহেল মিয়া, কালিয়াকৈর (গাজীপুর) প্রতিনিধি:

গাজীপুরের কালিয়াকৈরে নদীতে গোসল করতে নামার পর থেকে দুই দিনেও খোঁজে পাওয়া যায়নি শাহরিয়ার হোসেন সিহাবকে।

রবিবার দুপুরে গোসল করতে নেমে ৮ম শ্রেনীর ওই স্কুল ছাত্র তার বন্ধুদের সামনেই ঘাটাখালি নদীতে ডুবে নিখোঁজ হয়ে যায়।মমার্ন্তিক এ ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার লতিফপুর এলাকায়।

সোমবার (১৪ অক্টোবর) বিকেল পর্যন্ত নিখোঁজ ছাত্রের সন্ধ্যান পাওয়া যায়নি বলে জানা গেছে।

নিখোঁজ হওয়া স্কুলছাত্র হলো, জামালপুর জেলার বাসিন্দা মতিউর রহমানের ছেলে শাহরিয়ার হোসেন সিহাব(১৪)। সে কালিয়াকৈর উপজেলার লতিফপুর সরকারী প্রাথমিক মডেল স্কুলের অষ্টম শ্রেণীর ছাত্র।

ফায়ার সার্ভিস ও নিখোঁজের পরিবার জানায়, শাহরিয়ার দীর্ঘদিন ধরে তার বাবা-মায়ের সঙ্গে কালিয়াকৈর উপজেলার কালিয়াকৈর এলাকার জালালউদ্দিনের বাসায় ভাড়া থেকে বসবাস করে আসছে। রোববার দুপুরে সে তার বন্ধু মেহেদী, সাব্বির, তামিম আসাদকে তাদের বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে এসে তারা কয়েকজন মিলে লতিফপুর এলাকায় ঘাটাখালি নদীতে গোসল করতে নামে। এ সময় শাহরিয়ার তার বন্ধুদের সামনেই নদীতে ডুবে নিখোঁজ হয়।

স্থানীয়রা তাকে উদ্ধারের অনেক চেষ্টা চালিয়ে ব্যর্থ হয়ে কালিয়াকৈর ফায়ার সার্ভিসে খবর দেয়। খবর পেয়ে কালিয়াকৈর ফায়ার সার্ভিস ঘটনাস্থলে গিয়ে উদ্ধার কাজ শুরু করে। এক পযার্য়ে টঙ্গী ফায়ার সার্ভিসকে খবর দিলে সেখান থেকে একদল ডুবুরি এসে কালিয়াকৈর ফায়ার সার্ভিসের সঙ্গে উদ্ধার কাজ চালায়।

রবিবার সন্ধ্যায় কালিয়াকৈর উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান সেলিম আজাদ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন এবং নিখোঁজের উদ্ধার কার্যক্রমে সার্বিক সহযোগীতার আশ্বাসদেন।

রবিবার দিন উদ্ধার কার্যক্রম চালিয়ে ব্যর্থ হয়ে পরে সন্ধ্যায় ফায়ার সার্ভিসের উদ্ধার কার্যক্রম স্থগিত করা হয়।

কালিয়াকৈর ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন কর্মকর্তা কবিরুল ইসলাম জানান, টঙ্গী ফায়ার সার্ভিস থেকে আসা একদল ডুবুরিদের সাথে নিয়ে রবিবার সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত চেষ্টা চালিয়ে ওই স্কুলছাত্রকে খোঁজে পাওয়া যায়নি। অনেক খোঁজাখোঁজির পর সন্ধ্যা ৭টার সময় উদ্ধার কার্যক্রম স্থগিত করা হয়।